গোমাংস কাটা নিয়ে মুসলিম -বিএসএফ যুদ্ধে উত্তপ্ত ত্রিপুরা

গোমাংস কাটাকে কেন্দ্র করে বিএসএফ (BSF)এবং মুসলিম সম্প্রদায়ের লোকের মধ্যে সংঘর্ষে উত্তপ্ত হয়ে উঠল ত্রিপুরার (Tripura)সোনামুড়া

গোমাংস কাটা নিয়ে মুসলিম -বিএসএফ যুদ্ধে উত্তপ্ত ত্রিপুরা
bsf clashe with muslims in tripura

ঘটনার সূত্রপাত রবিবার সকালে। মতিনগর গ্রাম পঞ্চায়েতের তিন নম্বর ওয়ার্ডের ফকিরাদোলা এলাকায় গ্রামবাসীরা একটি অনুষ্ঠানকে কেন্দ্র করে একটি নির্দিষ্ট স্থানে গোমাংস কাটছিল। এই গোমাংস কাটার খবর ইউএনসি নগর BOP-র জওয়ানরা জানতে পেরে ঘটনাস্থলে পৌঁছন। গ্রামবাসীদের সঙ্গে তাঁদের বাকবিতণ্ডা শুরু করেন।

পরে সেখান থেকেই আস্তে আস্তে তা বিরাট আকার ধারণ করে। গ্রামবাসীদের উপর বিএসএফ লাঠিচার্জ শুরু করে বলে অভিযোগ। পরে গ্রামবাসীরা একত্রিত হয়ে বিএসএফ জওয়ানদের তাড়া করে। তাতে গুরুতর আহত হন এক বিএসএফ জওয়ান। তিনি বর্তমানে সোনামুড়া হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

বড়সড় অশান্তি এড়াতে এলাকায় মোতায়েন বিশাল পুলিশ বাহিনী।

এদিকে ঘটনার রেশ আস্তে আস্তে বাড়তে থাকায় গোকুলনগরের হেড কোয়ার্টার থেকে বিএসএফের উচ্চপদস্থ আধিকারিকরা ঘটনাস্থলে গিয়ে গ্রামবাসীদের সঙ্গে কথা বলেন। মোতায়েন করা হয়েছে পুলিশ, টিএসআর ও বিএসএফ জওয়ানদের। ঘটনাকে ঘিরে এলাকায় চাঞ্চল্য বিরাজ করছে। বিএসএফের পালটা অভিযোগ, বিওপি থেকে বিএসএফ জওয়ানরা রবিবার সকালবেলা টহলদারির সময় গ্রামবাসীদের রাস্তার পাশে গোমাংস (Beef) কাটতে বারণ করেছিলেন। আর তাতেই গ্রামবাসীরা উত্তেজিত হয়ে বিএসএফের উপর আক্রমণ চালায়। তাতে বিএসএফ জওয়ানদের মধ্যে একজন গুরুতর আহত হন। অন্যদিকে গ্রামবাসীদের অভিযোগ, অনুষ্ঠানের জন্য গোমাংস কাটা হচ্ছিল। তা দেখে বিএসএফ জওয়ানরা ক্ষিপ্ত হয়ে লাঠি দিয়ে পেটাতে থাকে। রাত পর্যন্ত এলাকা থমথমে।