Home আন্তর্জাতিক বিতর্কের মধ্যেই মন্ত্রিসভার বৈঠক ডাকলেন নেপালের প্রধানমন্ত্রী

বিতর্কের মধ্যেই মন্ত্রিসভার বৈঠক ডাকলেন নেপালের প্রধানমন্ত্রী

Dainik Khabor :-  ভারত এবং নেপালের মধ্যে একটি সুন্দর সম্পর্ক ছিল। কিন্তু হঠাৎ এই সেই সম্পর্কে ভাঙ্গন ধরে। এর মূল কারণ হলো নেপাল জানায় যে ভারত তাদের কিছুটা জায়গা দখল করে রেখেছে। হচ্ছে নতুন মানচিত্র প্রকাশ করেছিল সেটি নেপালের মেনে নেওয়া সম্ভব হয়নি, এরপর নেপালের সংসদে পাস হয় নতুন মানচিত্র, এবং তারা ভারতের অংশকে নিজেদের বলে দাবি করে। আর এর ফলেই ভারত এবং নেপালের মধ্যে একটি আলাদা রকম অশান্তির সৃষ্টি হয়। নেপালের প্রধানমন্ত্রী বারবার ভারতের দিকে আঙ্গুল তুলত থাকেন, তারা বলেন যে ভারত চাইছে নেপালের যাতে সরকারের পতন ঘটে।

এদিকে  ভারত চীনের সম্পর্কের মাঝে নেপাল চীনের সাথে হাত মেলায়, যদিও এর একটি কারণ,। কারণ হলো নেপালের রাজত্ব ক নষ্ট করে নিয়ে আসে কমিউনিস্ট পার্টি। চীনের মতো নেপাল কমিউনিষ্ট বিশ্বাসী। চীন থেকে নেপাল সবরকম সাহায্য পাওয়ার আশ্বাস পেয়ে চীনের সঙ্গে সাথী  হয় নেপাল। কিন্তু নেপাল ভারত থেকে সব রকমের সাহায্য পেয়ে থাকে, বর্তমান পরিস্থিতিতে নেপালের এই আগ্রাসন নীতি কে মেনে নেয়নি ভারত।

এ সম্পর্কে একটি মন্তব্য করেন নেপালের প্রধানমন্ত্রী কে পি ওলি। আর এই মন্তব্যের জন্যই নেপালের শাসকদল প্রধানমন্ত্রী পদত্যাগ দাবি করেন, প্রধানমন্ত্রীকে ইস্তফা দিতে বলেন। প্রধানমন্ত্রী  ওলি বলেন যে দিল্লিতে সরকার পতনের চেষ্টা চলছে। এই মন্তব্যের জন্যই নেপালের শাসকদল ক্ষুব্ধ হয়ে ওঠেন। প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ দাবি করেন তারা। এসব বিতর্কিত কথার মাঝেই আজ সাফাতের নিয়ে বৈঠক করেন প্রধানমন্ত্রী কেপি শর্মা ওলি।

নেপালের প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী পুষ্প কমল দাহাল, মাধব নেপাল, ঝালানাথ খানাল ও বামদেব গৌতম-সহ দলের বিশিষ্ট নেতারা প্রধানমন্ত্রীকে ইস্তফা দিতে বলেছেন। তারা অভিযোগ করেন যে ওলি।  নেপালে কোনরকম কাজেই করেনি।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -

শীর্ষ সংবাদ

- Advertisement -

অন্য রকম