fbpx
Friday, July 30, 2021
Homeআন্তর্জাতিক'চোরের মন পুলিশ পুলিশ' - রাফাল আসতেই পাকিস্তানের ঘাম ছুটা শুরু, ভয়ে...

‘চোরের মন পুলিশ পুলিশ’ – রাফাল আসতেই পাকিস্তানের ঘাম ছুটা শুরু, ভয়ে কাঁপছে ইমরান খান

অনলাইন ডেস্ক,৩১জুলাইঃ গত বুধবার ভারতের মাটিতে ঐতিহাসিক রাফেল বিমান ফ্রান্স থেকে এসে পৌঁছয়।ভারতে রাফেল বিমান আসতেই পাকিস্তান সহ চিনের মতো ভারতের শত্রুরা অনেকটাই নড়ে বসে পড়েছে। গত বুধবার ভারতের আম্বালা এয়ারবেসে এসে পৌঁছয় রাফেলের ৫টি যুদ্ধবিমান,এইদিন ভারতে রাফেলের পদার্পনে যেনো বিমানের ভয়ঙ্কর শক্তিধারী আওয়াজ পাকিস্তানের করাচি থেকে ইসলামাবাদ অবধি শোনা যায়,বুধবারে রীতিমতো ভয়ঙ্কর চাপের মুখে পরে পাকিস্তান। লুকিয়ে থেকে পিঠপিছনে ভারতের ওপর আক্রমণ করা পাকিস্তান যে আগাগোড়াই ভীতু দেশ সেটা সকলেরই জানা আছে আর বুধবারে রাফেল ভারতে আসতেই ঠিক যেনো চিন্তায় ও ভয়ে মাথা গোঁজার জায়গাটাও পাচ্ছে না ইমরান খানের পাকিস্তান।

পাকিস্তান বর্তমান পরিস্থিতিতে কি করছে আর কি না করছে হয়তো তারাও সেটা জানেনা। জানা গিয়েছে, পাকিস্তানের বিদেশ মন্ত্রালয় এর তরফ থেকে অভিযোগ করে বলা হয়েছে,ভারত বর্তমানে প্রতিরক্ষার সামগ্রীর বর্তমান প্রয়োজনের তুলনায় বেশি পরিমান হাতিয়ার নিজেদের অস্ত্র কোষাগারে জমা করছে।তাই এইদিন ভারতের ভয়ে ভীত পাকিস্তান আন্তর্জাতিক মঞ্চের কাছে এইদিন দাবি জানিয়েছে, যেনো ভারতকে তারা আরও নতুন করে অস্ত্রশস্ত্র থেকে শুরু করে সুরক্ষা বিষয়ক কোনো রকমের ক্ষেপণাস্ত্র ভারত তার কোষাগারে জমায়েত না করতে পারে।

আরও পড়ুনঃ  রাফালের সামনে চিন পাকিস্তানের সমস্ত অস্ত্র বাচ্চা : বললেন ভারতের প্রাক্তন বায়ুসেনা প্রধান

পাকিস্তানের তরফ থেকে আরও বলা হয়েছে যে, ভারত এখন দক্ষিণ এশিয়ার দেশ গুলোর মধ্যে দ্বিতীয় শক্তিশালী দেশ হয়ে উঠেছে, অন্যান্য দেশগুলোর চাইতে বর্তমানে ভারতের কাছে বেশি পরিমানে হাতিয়ার জমা করা হয়েছে যা অন্যান্য দেশ গুলোকেও আরও বিপদের মুখে ফেলতে পারে এমনকি তাতে করে ভারতের সাথে সম্পর্কে আরও আতাত সৃষ্টি হতে পারে।পাকিস্তানের বিদেশ মন্ত্রালয় আরও জানায়,ভারত লাগাতার তাদের পরমাণু হাতিয়ারের সংখ্যা বাড়িয়ে চলছে যাতে করে দক্ষিণ এশিয়ার রাজনৈতিক সম্পর্কে ব্যাঘাত ঘটতে পারে। এইদিন পরিষ্কার পাকিস্তানের থেকে ভারতকে ভয় পাওয়ার কারণগুলোই তুলে ধরে পাকিস্তানের বিদেশ মন্ত্রালয়।

পাকিস্তান ইতি মধ্যেই ভারতের কাছে এতটাই ভীত হয়েছে যে গত কয়েকদিন ধরে তারা রাফেল সংক্রান্ত তথ্য জানতে গুগল সার্চ করতে ব্যস্ত হয়ে পড়েছে।গুগল ট্রেন্ড অনুযায়ী,পাকিস্তানের কেউ দাম জানার জন্যে গুগল সার্চ করছে আবার অনেকে অত্যাধুনিক ফাইটার জেট কোনটি সেটা সম্পর্কে জানতেও গুগল সার্চে ব্যস্ত হয়ে পরে।শুধু কি যুদ্ধবিমান এমনটাই নয় দুই দেশের বায়ুসেনার শক্তি কতটা সেটাও নিয়ে ইতি মধ্যে গুগল সার্চ এর হিড়িক উঠেছে ভীত পাকিস্তানের মধ্যে।এমনকি বুধবার গুগলে F-16 এবং রাফেলের মধ্যে কোনটি বেশি অত্যাধুনিক সেটাও দেখতে গুগল বাবার পূজো শুরু করেছে পাকিস্তান।এখন পর্যন্ত খবর অনুযায়ী সিন্ধু,ইসলামাবাদ,গিলগিট-বালুচিস্তান,পাঞ্জাব অঞ্চলেও গুগলে রাফাল ট্রেন্ড করছে।

আসলে পাকিস্তান রাফেল আসার পরথেকেই ভারতের সার্জিকাল স্ট্রাইকের কথা মনে করছে।ভারতের কাছে এখন রয়েছে রাফেল যার সাহায্যে সহজেই ভারতীয় বায়ুসেনা পাকিস্তানের ভূমিতে পৌছে ভারতীয় সেনার শক্তি এবং দেশের প্রতি সেনাদের ভালোবাসা সাথেই শহীদ সেনাদের বদলা নিতে কেউ রোধ করতে পারবে না, আর এই ভয়টাই মূলত কাজ করছে পাকিস্তানের সরকারের ওপর।বেশকিছু বিশেষজ্ঞদের মতে,রাফেল ভারতের কাছে সাক্ষাৎ ঈশরের দান যা শত্রুপক্ষকে যেকোনো পরিস্থিতিতে তাদের লক্ষ্য ভ্রষ্ট করতে সক্ষম এবং শক্তিশালী রাফেল আসার পরথেকেই পাকিস্তানের ওপর আরও নতুন করে চাপ সৃষ্টি হয়েছে।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

শীর্ষ সংবাদ

অন্য রকম