fbpx
Saturday, July 24, 2021
Homeদেশরেকর্ড গড়ল ভারত, একদিনে চার লক্ষ করোনা স্যাম্পল টেস্ট

রেকর্ড গড়ল ভারত, একদিনে চার লক্ষ করোনা স্যাম্পল টেস্ট

অনলাইন ডেস্ক,২৬জুলাইঃ  ভয়াবহ করোনা ভাইরাস গোটা বিশ্বকে ক্রমশ গ্রাস করে চলেছে। প্রতিটা দেশেই যদিও ইতিমধ্যে বাড়ছে সুস্থতার হার তবুও বিপদের আশঙ্কা থেকেই যায়। কেননা এই ভয়াবহ রোগের বিরুদ্ধে এখনো পর্যন্ত আবিষ্কার হয়নি কোন যথাযথ প্রতিষেধক। বিগত কয়েকদিন ধরে ভারতে রোজ পাওয়া যাচ্ছে ৫০ হাজারের বেশি করোনা সংক্রমণের খবর। সূত্র মারফত জানা যায় যে, এর কারণ হিসাবে ভারতে প্রতিদিন রেকর্ড হারে টেস্টিং হচ্ছে।

ভারত তৈরি করছে এক নতুন রেকর্ড। গত ২৫ জুলাই ভারতে মোট ৪,৪২,২৬৩ স্যাম্পেল টেস্ট করে৷ এর জন্যই টেস্টিংয়ের নিরিখে চতুর্থ স্থানে উঠে এলো গোটা বিশ্বে ভারত। যত বেশি পরীক্ষার হার বাড়ানো হচ্ছে ততো বেশি করে সংক্রমণের খবর পাওয়া যাচ্ছে। বিশেষজ্ঞরা দাবি করেছেন, ‘করোনা সংক্রমণের টেস্ট যত বাড়ানো হবে, ততই ধীরে ধীরে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের মধ্যে আসবে৷ কারণ টেস্টে ধরা পড়বে নতুন করোনা রোগী৷ এইভাবে যত সংক্রমনের সংখ্যা বাড়বে তত সংক্রমণের উঁচু দিকে যাওয়ার কার্ভ নীচে নামবে।’

ভারতের পরিসংখ্যানের ভিত্তিতে জানা যায় যে, এখনও পর্যন্ত ভারতে করোনা পরীক্ষা হয়েছে ১,৬২,৯১,৩৩১ জনের৷ সারা ভারতে রোজ অন্তত সাড়ে তিন লক্ষ করে টেস্ট হয়েছে, গত সপ্তাহ নাগাদ৷ তবে বিশেষজ্ঞরা জানাচ্ছেন যদি ভারতের জনসংখ্যার নিরিখে বিচার করা হয় তাহলে এই সংখ্যা অনেকটাই কম। এখন ভারতের প্রতি ১০ লক্ষ লোকে ১,১১,৭৮.৮৩ টেস্ট হচ্ছে৷ ১০ শতাংশের নীচে পজিটিভ হওয়ার হার। টেস্টের সংখ্যা আরও বাড়াতে হবে৷ এখনো পর্যন্ত চীনে সবচেয়ে বেশি টেস্টিং হয়েছে, যদি কিনা পৃথিবীর পরিসংখ্যানের দিকে নজর রাখা যায়।

চিনে মোট ৯ কোটির বেশি স্যাম্পেল টেস্ট করা হয়েছে৷ পরবর্তী স্থানে রয়েছে আমেরিকা৷ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে এই মুহূর্তে ৫ কোটিরও বেশি স্যাম্পেল টেস্ট হয়েছে৷ তৃতীয় স্থান দখল করেছে রাশিয়া। এখনো পর্যন্ত ২ কোটি ৬০ লক্ষ টেস্ট হয়েছে রাশিয়াতে ৷ এবং চার নম্বর তালিকায় রয়েছে ভারত, সেখানে ১ কোটি ৬২ লক্ষ টেস্ট হয়েছে৷

ভারতে বিগত ২৪ ঘন্টায় প্রায় ৪৯০০০ জন সংক্রামিত হয়েছেন।শনিবার দেশে নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন ৪৮,৬৬১ জন, স্বাস্থ্যমন্ত্রকের রিপোর্ট অনুসারে, এবং ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ৭০৫ জনের৷ দেশে এখনও অবধি করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ১৩ লক্ষ ৮৫ হাজার ৫২২৷ শুক্রবার ৪৮,৯১৬ জন করোনা ভাইরাস সংক্রামিত হয়েছিলেন৷ এবং তখন ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছিল ৭৫৭ জনের৷

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

শীর্ষ সংবাদ

অন্য রকম