‘সূর্যবংশী’ ইসলামের বিরুদ্ধে ঘৃণা ছড়াচ্ছে , পাকিস্তানের অভিযোগের তুলধুনা করলেন রোহিত শেট্টি

‘সূর্যবংশী’ ইসলামের বিরুদ্ধে ঘৃণা ছড়াচ্ছে , পাকিস্তানের অভিযোগের তুলধুনা করলেন রোহিত শেট্টি
সূর্যবংশী

অক্ষয় কুমারের সাম্প্রতিক মুক্তিপ্রাপ্ত ছবি ‘সূর্যবংশী’ দেখে ভয় পেল পাকিস্তান । এই ছবি ‘ইসলামোফোবিয়া’ অর্থাৎ মুসলিম সম্প্রদায়ের প্রতি ঘৃণা, ভয়কে বাড়ায়  বলে অভিযোগ করেছে প্রতিবেশী রাষ্ট্র। সে দেশের রাষ্ট্রপতি আরিফ আলি থেকে শুরু করে অভিনেত্রী মেহবিশ হায়াত, সকলেই সুর চড়িয়েছেন সূর্যবংশীর বিরুদ্ধে।

কিন্তু কী কারণে এই অভিযোগ?

আসলে সূর্যবংশী ছবিতে খলনায়কের ইসলাম নাম হওয়াতেই এই ক্ষোভ। কোনো যুক্তিই মানতে রাজি নয় পাক মুলুক। ইতিমধ‍্যেই সোশ‍্যাল মিডিয়ায় নতুন প্রোপাগান্ডা শুরু করেছে তারা। সোশ‍্যাল মিডিয়ায় পাকিস্তানের রাষ্ট্রপতির দাবি, ‘এই ধরনের ইসলামোফোবিক কন্টেন্ট ভারতকেই ধ্বংস করে দেবে। আমার বিশ্বাস, ভারতের বুদ্ধিমান মানুষ এই ধরনের বিষয়গুলোকে বন্ধ করবে।’

রোহিত শেট্টি। স্পষ্ট জানিয়েছেন,  সিংঘম, সিংঘম ২ এবং সিম্বা ছবিতে তিনজন খলনায়কই হিন্দু মরাঠি ছিলেন। এতে তো কোনো সমস‍্যা হয়নি। যদি পাকিস্তান থেকে কোনো সন্ত্রাসবাদী ভারতে আসে তাহলে তার নাম, ধর্ম কী হবে? ছবির গল্পটাই তো সেটা, এক পাকিস্তানি সন্ত্রাসবাদীকে এ দেশের পুলিস পাকড়াও করবে আর শেষ করবে।

বক্স অফিসে জমিয়ে ব‍্যবসা করেছে ‘সূর্যবংশী । খুব শিগগিরি ১৫০ কোটির ক্লাবে ঢুকে পড়বে এই ছবি