Home আন্তর্জাতিক চিনকে s-400 বিমান দেওয়ার সিদ্ধান্তে পিছু হাঁটলো রাশিয়া! চাপ বাড়ল চিনের

চিনকে s-400 বিমান দেওয়ার সিদ্ধান্তে পিছু হাঁটলো রাশিয়া! চাপ বাড়ল চিনের

অনলাইন ডেস্ক,২৮জুলাইঃ চিন একটি শক্তিশালী দেশ, কিন্তু নিজের শক্তির অহংকারে চিন যা করছে সেটা বিশ্বের প্রত্যেকটি দেশের কাছে চিনের মুখোশের আড়ালের চিত্রটা খুবই পরিষ্কার। গোটা বিশ্বে করোনার সংক্রমন থেকে শুরু করে বিশ্বের একাধিক দেশের সাথে ছলনা প্রতারণা করার অভ্যাস যেনো এখন চিনের আসল পরিচয়।

ভারতের মতো শান্তিপ্রিয় দেশের সাথেও বেইমানি করেছে চিন আর তার ফলটাও বর্তমানে হাড়ে হাড়ে টের পাচ্ছে চিন সরকার। ভারতে চিনের ব্যবসায়ী ক্ষেত্রে যেমন পণ্য দ্রব্য আমদানি বন্ধ হতে চলেছে তেমনি চিনের বেশকিছু অ্যাপকেও ভারত সরকারের তরফ থেকে বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।মোট কথা বিশ্বের বেশকিছু শক্তিশালী দেশ চিনের ওপর প্রচন্ডক্ষুব্ধ রয়েছে যেমন, ভারত, আমেরিকা, জাপান, অস্ট্রেলিয়া আরও অনেক দেশ যারা চিন-ভারত এর মধ্যে গোলওয়ান ঘাঁটির সেনা সংঘর্ষে চিনকে প্রধান দোষী সাব্যস্ত করে ভারতের পাশে দাঁড়িয়েছে।এছাড়াও আমেরিকার রাষ্ট্রপতি করোনা সংক্রমন থেকে শুরু প্রতিবেশী রাষ্ট্রদের সাথে চিনের শত্রুতায় চিনকেই বারবার দুষেছে এমনকি কড়া সুরে চিনকে হুঁশিয়ারি দিয়েছে। এইবার চিনের সাথে দূরত্ব রাখার ইঙ্গিত দিল রাশিয়া। নয়া সমীকরণ তৈরী করেও আপাতত অত্যাধুনিক S-400 মিসাইল সিস্টেম চিনকে না দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাশিয়া।

আরও পড়ুনঃ দিল্লির রাজপথও যেনো সুশান্ত সিং রাজপুতের সিবিআই তদন্ত চাইছে!

ভারতের সাথেও s-400 মিসাইল সিস্টেমের চুক্তি হয়েছে রাশিয়ার কিন্তু এইদিন বন্ধু ভারতের সাথে বন্ধুত্বের হাতকে শক্ত করে বিশ্বের সামনে তুলে ধরে চিনকে s-400 মিসাইল সিস্টেম দিতে স্থগিতাদেশ জানিয়েছে রাশিয়া। অন্যদিকে ভারতকে আগামী ডিসেম্বরের মধ্যেই রাশিয়া মিসাইল সিস্টেম তুলেদেবে বলে খবর পাওয়া যায়।

রাশিয়ার তরফ থেকে জানান হয়, বর্তমানে করোনা সংক্রমণের কথা মাথায় রেখে এখন সম্ভব হচ্ছে না, তাই এই মুহূর্তে কোনো ভাবেই চিনের হাতে মিসাইল সিস্টেম তুলে দেওয়া যাবে না।ভারতের প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিং রাশিয়া সফরে জান, তখনই রাশিয়ার পুতিন সরকার ভারতের হাতে মিসাইল সিস্টেম তুলে দেবার কথা জানায়। কিন্তু বর্তমানে ভারতকে মিসাইল সিস্টেম তুলে দিতে চাইলেও চিনকে এখন মিসাইল দিতে আপত্তি জানায় রাশিয়া।

ভারতের সাথে বেইমানির ফল যেনো প্রত্যেকটি মুহূর্তে চিনকে ভুগতে হচ্ছে। অনেকেই মনে করছেন, কেন্দ্র সরকারের বিদেশনীতি থেকে শুরু করে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর অন্যান্য দেশের প্রতি সম্মান ও বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক ভারতকে অনেক ক্ষেত্রেই মজবুত করে তুলেছে।তাই ভারতের সাথে শত্রুতার পথ বেছেনিয়ে চিন যে ভুল করেছে তার ফল হাড়ে হাড়ে টের পাচ্ছে চিন।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -

শীর্ষ সংবাদ

- Advertisement -

অন্য রকম