Home লাইফস্টাইল ত্বককে সুস্থ রাখার কিছু ঘরোয়া পদ্ধতি!

ত্বককে সুস্থ রাখার কিছু ঘরোয়া পদ্ধতি!

আমাদের ত্বকের ভীষণ ভাবে যত্ন নিতে হয় কারণ ত্বক হল দেহের এমন একটি অংশ যা একটু অযত্নে প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হয়।তাই সবাই ত্বকের যত্নের জন্য কেউ কিছু বললে সেটা শুনে আবার কেউ কেউ ডাক্তার এর পরামর্শ মতো চলে। আবার কেউ কেউ কোনো কিছু এপ্লাই করার আগে একটু ভয় পায় কারণ অনেক কিছু ঠিক মতো না হলে তার ভুল প্রতিক্রিয়া হয় তাই ত্বকে কিছু ব্যবহার করার আগে আমাদের ভীষণ ভাবে সচেতন হতে হয়।কারণ সবসময় কেউ আপনাকে দেখলে সবার আগে সে আপনার ত্বকের ওপরই নজর দেয়। ত্বকের উজ্জ্বলতা নষ্ট হয়ে গেলে যেন আপনাকে কেনো ভাবেই ভালো লাগে না।তাই আজকে আপনাদের ত্বকের ব্যাপার এ কিছু গুরুত্বপূর্ণ কথা বলবো।

সূর্যের আলো এমন একটা জিনিস যা আপনার ত্বকের জন্য উপকারী আবার ক্ষতিকর। যদিও সব জিনিসের উপকারী ও ক্ষতিকারক পদার্থ থাকে। তেমনি সূর্যের আলোর ভিটামিন D সৃষ্টি করে যা হাড়ের জন্য উপকারী যতেমনি অতিরিক্ত সূর্যের আলোর ফলে ত্বকের মধ্যে কালো কালো হয়ে যায়। এছাড়া ও সূর্যের আলোতে থাকা ইউভিবি অতিরিক্ত ত্বকের মধ্যে প্রবেশ করলে ক্যান্সার হতে পারে। তাই খুব প্রয়োজন না থাকলে সূর্যের আলোর মধ্যে কম যান।

আজকাল প্রায় সবাই কম বেশি মানসিক চাপে ভুগেন। সেক্ষেত্রে বলবো মানসিক চাপ যতটা পারেন এড়িয়ে চলুন কারণ মানসিক চাপ কিন্তু আপনার ত্বকের জন্য ভীষণ ক্ষতিকর। মানসিক চাপের ফলে আপনার ত্বক উজ্জ্বলতা হারিয়ে ফেলে। যার ফলে আপনাকে আপনার বয়সের চেয়েও আপনাকে অনেক বেশি বয়স্ক দেখায়।

আরও পড়ুনঃ  ঘরের যে সমস্ত জিনিস গুলো অবশ্যই সবসময় পরিষ্কার রাখবেন!

অনেকে বলে ত্বকের জন্য নাকি খুব জল খেতে হয় এটা সম্পূর্ণ সত্য নয়। কারণ ত্বকের মধ্যে জল সরবরাহ করে কিডনি , রক্তনালী সহ বিভিন্ন অঙ্গ। তাই আপনি বেশি জল পান করলেই সেই জল সরাসরি আপনার ত্বকে প্রবেশ করে না। আপনার দেহের বিভিন্ন অঙ্গের দ্বারা সেগুলো ত্বকের মধ্যে প্রবেশ করে। তাই আপনি আপনার শারীরিক প্রয়োজন মতো জল খান ত্বকের কথা ভেবে এক্সট্রা জল না খেলেও হবে।

অনেকে ভাবেন বেশি ক্যালোরি যুক্ত , তেল যুক্ত খাবার খেলে আপনার ত্বকের ক্ষতি হতে পারে। আপনার ত্বকের মধ্যে ব্রণ হতে পারে। অতিরিক্ত চর্বি যুক্ত খাবার আপনার স্বাস্থ্যর পক্ষে ক্ষতিকর কিন্তু তাতে ব্রণ হয় না। আসলে ব্রণ বয়েসের সাথে সাথে হরমোনের কারণে হয়। বিশেষত ব্রণ কিশোর বয়সে দেখা যায়। আবার আপনার ত্বক তৈলাক্ত হলেও ব্রণ হয়। সেক্ষেত্রে খাবার খেলেই যে ব্রণ হবে এমন ব্যাপার নেই।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -

শীর্ষ সংবাদ

- Advertisement -

অন্য রকম